Connect with us

ইথেরিয়াম

মাইনিং লাভজনক কি? ইথেরিয়াম মাইনিং এর বিস্তারিত

Published

on

ক্রিপ্টো কয়েনের মধ্যো যত গুলো মাইন করা যায় তার মাঝে ইথেরিয়াম মাইনিং সবচেয়ে বেশি জনপ্রিয়, ইথেরিয়াম বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই জিপিউ দিয়ে মাইন করা হয়ে থাকে। কিছু ডেডিকেটেড ইথেরিয়াম এসিক মাইনার বাজারে পাওয়া যায়। আজকে জিপিউ মাইনিং লাভজনক কি না সেটা নিয়েই আমাদের আর্টিকেল।
মাইনিং প্রফিট কয়েকটি জিনিস এর উপর ডিপেন্ড করে ।

  • হ্যাশরেট
  • ব্যবহৃত বিদ্যুৎ
  • বিদ্যুৎ ইউনিট রেট
  • ব্লক রিওয়ার্ড
  • ডিফিকাল্টি
  • কয়েন ভ্যালু

হ্যাশরেট
জিপিউ বা আপনার হার্ডওয়্যার ১ সেকেন্ডে যত গুলো হ্যাশ ক্যাল্কুলেশন করতে পারে তাকে হ্যাশরেট বলা হয়। হ্যাশরেট যত বেশি হবে আপনার মাইনিং ক্ষমতা তত বেশি থাকবে, আপনার জন্যে মাইনিং লাভজনক ও তত বেশি হবে।

ব্যবহৃত বিদ্যুৎ
বিদ্যুৎ ব্যাবহার যত কম খরচ হবে আপনার মাসিক বিদ্যুৎ বিল তত কম হবে নিচের দেওয়া চার্টে জিপিউ এর এভারেজ পাওয়ার ইউসেজ ও ওয়াট পার মেগাহ্যাশ দেয়া আছে।

বিদ্যুৎ ইউনিট রেট
বাংলাদেশে বাসা বাড়ির আবাসিক লাইনে বিদ্যুৎ ইউনিট রেট ১0 টাকা। ১ ইউনিট =১০০০ ওয়াট ।
১০০০ ওয়াট ১ ঘন্টা চললে আপনার ১0 টাকা বিল আসবে।

ব্লক রিওয়ার্ড
ব্লক রিওয়ার্ড হচ্ছে মাইনার দের ট্রান্সেকশন ভেরিফাই করার জন্য যে ফি দেয়া হয়।
ব্লক রিওয়ার্ড ৩ ভাগে বিভক্ত-

  1. বেস ফি ২ ইথেরিয়াম।
  2. ট্রান্সেকশন ফি।
  3. MEV ( মাইনার এস্কট্রাকটেড ভ্যালু )

বেস ফি হচ্ছে ইথেরিয়াম নেটওয়ার্কে নতুন ইথেরিয়াম। এটা মাইনারদের মাধ্যমেই নেটওয়ার্কে ডিস্ট্রিবিউট হয়ে থাকে। ১৩ সেকেন্ডে যত গুলো ট্রান্সেকশন হয় সব গুলোর ট্রান্সেকশন ফি হচ্ছে TX Fee । TX Fee যত বেশি হবে আপনার কাছে ইথেরিয়ামও আসবে বেশি। EIP-1559 এর জন্য মাইনার দের যাতে বেশি লস না হয় তাই কিছু মাইনিং পুল মাইনার দের থেকে প্রফিট করা কিছু অংশ মাইনার দের দিয়ে দিচ্ছে MEV রিওয়ার্ড নামে।

ডিফিকাল্টি
ক্রিপ্টোকারেন্সির মাইনিং প্রতিটি ব্লকের জন্য সঠিক হ্যাশ খুঁজে পাওয়া কতটা কঠিন এবং সময়সাপেক্ষ তা বুঝায় ডিফিকাল্টি দিয়ে। একটি হাইয়ার ডিফিকাল্টি মানে এই যে এটি একই সংখ্যক ব্লকগুলিকে মাইন করতে আরও বেশি কম্পিউটিং শক্তি নেবে আরো মাইনার নতুন যোগ হয়েছে , এবং ক্রিপ্টো নেটওয়ার্ক ডাটা অল্টার এটাকের বিরুদ্ধে আরও সুরক্ষিত থাকবে।

কয়েন ভ্যালু
আপনার আর্নিং হবে ক্রিপ্টো তে । আপনার মাইন করা কয়েনের ভ্যালু যত বেশি আর্নিং তত বেশি।

নিচে ১০ টা করে জিপিউ এর বেসিক ইথেরিয়াম মাইনিং লাভজনক কিনা তার উদাহরন হিসেবে দিলাম-

ModelRAMMH / SPowerMH/s 10xPower 10x W Watt / Mh
Rx 470 , 480 ,570 ,5808GB30130 W30013004.33Whattomine Link
Rx 5500 XT8GB28105 W28010503.75Whattomine Link
Rx 5600 XT6GB44110 W44011002.5Whattomine Link
Rx 5700 / 5700 XT8GB55125 W55012502.27Whattomine Link
Rx 6700 XT12GB48140 W48014002.91Whattomine Link
Rx 6800 / 6800 XT16 GB64150 W64015002.34Whattomine Link
Rx 6900 XT16GB64150 W64015002.34Whattomine Link
RX Vega 56/648GB52150-250 W52015002.44Whattomine Link
AMD Radeon VII16GB104195 W104019501.875Whattomine Link
ModelRAMMH / SPowerMH/s 10xPower 10x WWatt / Mh
GTX 10606GB26110 W26011004.2Whattomine Link
GTX 1660 Ti6GB3075 W3007502.5Whattomine Link
GTX 1660 Super6GB3274 W3207402.31Whattomine Link
GTX 10708GB27110 W27011004.07Whattomine Link
GTX 1070 Ti8GB30120 W30012004Whattomine Link
GTX 10808GB35150 W35015004.28Whattomine Link
GTX 1080 Ti11GB48210 W48021004.37Whattomine Link
RTX 20606GB3390 W3309002.72Whattomine Link
RTX 2060 Super8GB42110 W42011002.61Whattomine Link
RTX 20708GB43110 W43011002.55Whattomine Link
RTX 20708GB44110 W44011002.5Whattomine Link
RTX 20808GB45126 W45012602.8Whattomine Link
RTX 2080 Super8GB45125 W45012502.77Whattomine Link
RTX 2080 TI11GB57150 W57015002.63Whattomine Link
RTX 306012GB50110 W50011002.2Whattomine Link
RTX 3060 TI8GB61105 W61010501.72Whattomine Link
RTX 30708GB62110 W62011001.77Whattomine Link
RTX 308010GB100240 W100024002.4Whattomine Link
RTX 309024GB120310 W120031002.58Whattomine Link
বিঃদ্রঃ- জিপিউ হ্যাশরেট ও পাওয়ার ইউসেজ ভেন্ডর , চিপসেট অনু্যায়ী ৫% কম বেশি হতে পারে।

Whattomine

প্রফিট ক্যাল্কুলেশনের জন্য অনলাইন এ বেশ কিছু ক্যালকুলেটর পাওয়া যায়। যেগুলো API ব্যাবহার করে ৭ দিন , ১ মাস , ১ দিন, ১ ঘন্টা আগের সংগ্রিহীত ডাটার উপর ভিত্তি করে প্রফিট কেমন হতে পারে তা দেখায় । যদিও এগুলো ৮০% ১ দিনের ডাটা একুরেট দেখায় কিন্তু এর বেশি দিনের ডাটা একুরেট হয় না। WHATTOMINE প্রফিট ক্যাল্কুলেশন এর জন্য সবচেয়ে বেশি জনপ্রিয়। আমি নিচে পয়েন্ট করে কোনটার কি কাজ দেখিয়ে দিচ্ছি।

  1. আপনার হার্ডওয়্যার এর হ্যাশরেট ইনপুট করুন
  2. আপনার হার্ডওয়্যার এর ওয়াট ইনপুট করুন
  3. বিদ্যুত ইউনিট রেট ডলারে ইনপুট করুন
  4. ব্লক রিওয়ার্ড
  5. মাইনার বা পুল ফি থাকলে পার্সেন্ট এ ইনপুট করুন
  6. আপনার হার্ডওয়্যার এর দাম ডলারে
  7. ডিফিকাল্টি
  8. ব্লক রিওয়ার্ড সিলেক্ট ( এখনকার ব্লক – এভারেজ ১ ঘন্টা – ২৪ ঘন্টা -৩ দিন – ৭ দিন )
  9. ডিফিকাল্টি সিলেক্ট ( এখনকার ব্লক – এভারেজ ১ ঘন্টা – ২৪ ঘন্টা -৩ দিন – ৭ দিন )
  10. আপনার ইনপুট অনুযায়ী আপনার আর্নিং কেমন হতে পারে।
  11. আপনার হার্ডওয়্যার এর খরচ কত দিনে উঠে আসতে পারে।

এছাড়াও এটাতে আরো কয়েকশ কয়েনের মাইনিং ডাটা রয়েছে , জিপিউ/এসিক এর এভারেজ মাইনিং ডাটা আছে এলগরিদম অনুযায়ী।

মাইনিং কি লাভ জনক ?

উপরের ডাটা অনুযায়ী Nvidia RTX 3060 TI সবচেয়ে পাওয়ার এফিসিয়েন্ট জিপিউ। ১.৭ ওয়াট খরচ করে ১ মেগা হ্যাশ পাওয়া যায়। আমরা যদি ১০ টি Nvidia RTX 3060 TI ব্যাবহার করি তাহলে হার্ডওয়্যারের টোটাল সেটআপ বর্তমান বাজার মুল্যো অনুযায়ী খরচ হয় আনুমানিক ৯ লক্ষ টাকা বা ১০,৫৮৮ ডলার। ১০ টি জিপিউতে ৬১০ মেগা হ্যাশ ও বিদ্যুত খরচ ১০৫০ ওয়াট + ১০০ ওয়াট সিস্টেম + ৯৬% এফিসিয়েন্সি পাওয়ার সাপ্লাই হলে ৬৯ ওয়াট সব মিলিয়ে ১২২০ ওয়াট । পুল ফি ১ % বিদ্যুত ইউনিট .০.১২$ ধরে আর্টিকেল পাবলিশের সময় ১ইথেরিয়াম = ২৩৫০$ রেট চলমানে ৩১২ দিনে ROI বা রিটার্ন অন ইনভেস্টমেন্ট সম্ভব @whattomine। আপনার মাইন করা কয়েন যদি হোল্ড করে হোল্ড করে দাম বাড়লে সেল করেন তাহলে আরো ভাল প্রফিট করা সম্ভব। এ ছাড়াও আরো কিছু কম মুল্যোর জিপিউ তে আরো আগে ROI সম্ভব। টার্গেট থাকতে হবে ৯০ থেকে সর্বচ্চো ১২০ দিনে ROI এর। স্ক্যাপলিং হার্ডওয়্যার প্রাইস সব সময় এড়িয়ে চলতে হবে। যদি সোলারের বিদ্যুত ব্যাবহার করতে পারেন তাহলে জিপিউ এর লাইফটাইমে সোলারের টাকাও উঠে যাবে। পরিশেষে বলা যায় মাইনিং লাভ জনক তবে EIP – 1559ETH 2.0 এর কথা মনে রেখে ইনভেস্ট করতে হবে।

Continue Reading
Click to comment

মতামত দিন

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Trending

Copyright © 2021. All rights reserved.